নতুন জাতের ৪ কেজি ওজনের আম পাবেন যেখানে

একটি আমের ওজনই হয়ে থাকে ৪ থেকে সাড়ে ৪ কেজি। আমটির নাম ব্রুনাই কিং(Brunei King)। যা আষাঢ়ের পরে শ্রাবণ মাসের শেষদিকে পাকে। বেশি ওজনের পাশাপাশি এটি খেতেও সুস্বাদু। আমটি পাওয়া যাচ্ছে বাংলাদেশেই। যোগাযোগ করতে পারেন আজই।

জানা যায়, ২০১১ সালে ব্রুনাই রাজপরিবার থেকে ‘ব্রুনাই কিং’(Brunei King) নামের বিশাল আকৃতির আমের জাতটি সংগ্রহ করা হয়। বর্তমানে কলমের মাধ্যমে এ জাতের ৫শ’র বেশি চারা তৈরি করা হয়েছে। প্রতিটি চারা ৩০০-৫০০ টাকায় বিক্রি করা হচ্ছে।

আমের বৈশিষ্ট্য
১. এ জাতের আম গাছের উচ্চতা ৮-১০ ফুট।
২. বৈশাখ-আষাঢ় মাসের মধ্যে এ জাতের চারা রোপণ করতে হয়।
৩. চারা রোপণের ২ বছরের মধ্যেই আম ধরে।
৪. শ্রাবণের শেষদিকে আম পাকে।
৫. প্রতিটি আমের ওজন সাড়ে ৩ থেকে সাড়ে ৪ কেজি।
৬. প্রতিটি আম আঁশমুক্ত, মিষ্টি ও সুস্বাদু।
৭. দেখতে অনেকটা কলার মতো লম্বা হয়ে থাকে।
৮. কাঁচা আম খেতে কিছুটা টক, মিষ্টি স্বাদ।
৯. কাঁচা আমের রং হয়ে থাকে কালচে সবুজ।
১০. পাকা আমের স্বাদ অনেকটা ফজলি আমের মতো।
১১. আমের আঁটি (বিচি) একদম ছোট।
১২. মাতৃগাছে প্রতিবছর ২০-৩০টি পর্যন্ত আম হয়ে থাকে।

প্রাপ্তিস্থান: মাগুরার শালিখার শতখালী গ্রামের আতিয়ার রহমানের কাছে পাওয়া যাবে। তার কাছ থেকে কলম নিয়ে মাগুরা হর্টিকালচার সেন্টারে রোপণ করা হয়েছে। সেখানে কলম লাগানো গাছ আছে, যা থেকে সংক্রায়নের মাধ্যমে নতুন চারা তৈরি করে তা বাণিজ্যিকভাবে বিক্রি করা হচ্ছে।

এছাড়াও মুন্সীগঞ্জ জেলার উপজেলা কৃষি অফিস, সিরাজদিখানে যোগাযোগ করলে এ জাতের আমের চারা পাওয়া যাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *