কাঁঠালের মুচি পচা রোগ ও প্রতিকার

কাঁঠাল একটি সুস্বাদু রসালো ফল। এর রয়েছে নানা পুষ্টিগুণ ও উপকারিতা। কাঁঠালে বিটা ক্যারোটিন, ভিটামিন এ, সি, বি-১, বি-২, পটাশিয়াম, ক্যালসিয়াম, ম্যাগনেসিয়ামসহ নানা রকমের পুষ্টি ও খনিজ উপাদান পাওয়া যায়। এই সকল উপাদান আমাদের শরীরকে সুস্থ ও সবল রাখতে সাহায্য করে। আজ আলোচনা করব কাঁঠালের মুচি পচা রোগ এর লক্ষণ ও প্রতিকার সম্পর্কে।

কাঁঠালের মুচি পচা রোগ Inflorescence Rot of Jackfruit (Rhizopus sp.) ছত্রাক এর আক্রমনে হয়ে থাকে।

ক্ষতির ধরণ ও লক্ষণ: প্রথমে ফলের/ মুচির গায়ে বাদামি দাগ হয় তারপর আস্তে আস্তে কালচে হয়ে পচে যায় । পচা অংশে অনেক সময় ছত্রাকের সাদা মাইসেলিয়াম দেখা যায়। বৃষ্টি ও ঝড়ো বাতাসে এ রোগ বাড়ে। রোগের কারণে ছোট অবস্থায় মুচি পচে গাছ থেকে ঝরে। এ রোগ সাধারণত ফলের বাড়ন্ত পর্যায়ে ফলে আক্রমণ করে।

প্রতিকার ব্যবস্থাপনা: কাঁঠালের আক্রান্ত মুছি ছিড়ে মাটিতে পুঁতে ফেলতে হবে। সবসময় গাছ পরিস্কার পরিচ্ছন্ন রাখতে হবে।
মুচিতে ১% বর্দোমিকচার বা ২ গ্রাম ডাইথেন এম- ৪৫ বা রিডোমেল গোল্ড বা ০.৫ মিলি ফলিকুর প্রতি লিটার পানিতে মিশিয়ে ১২-১৫ দিন অন্তর ২/৩ বার স্প্রে করা। এম-৪ প্রতি ১০ লিটার পানিতে ২০ গ্রাম মিশিয়ে স্প্রে করতে হবে।

পূর্ব-প্রস্তুতি: ফল সংগ্রহ শেষ হলে গাছের মরা ডালপালা, ফলের বোঁটা, রোগ বা পোকা আক্রান্ত ডাল পালা ও অতিঘন ডাল পালা ছাটাই করে পরিস্কার করে দিতে হবে। পরিস্কার করার পর একটি ছত্রাক নাশক ও একটি কীটনাশক দিয়ে পুরো গাছ ভালভাবে স্প্রে করে রাখা ভালো।